মঠবাড়িযায় পূর্ব শক্রতার জেরে দোকান ও বসত ঘর ভেঙ্গে গুড়িয়ে দিলেন প্রতিপক্ষরা

অন্যান্য
Spread the love

ফেরদৌস,পিরোজপুর জেলা প্রতিনিধি: পিরোজপুরের মঠবাড়িযা উপজেলায় জমি সংক্রান্ত বিরোধের জেরে চারটি অাধাপাকা দোকান ও একটি বসতঘর ও বসতঘর গুড়িয়ে দিলেন প্রতিপক্ষরা। মঙ্গলবার রাতে উপজেলার দক্ষিণ ফুলঝুরি গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। জানা গেছে, উপজেলার দক্ষিণ ফুলঝুরি গ্রামের মোঃ সুলতান মুন্সির ছেলের সহিদুল ইসলামের ছেলে সহিদুল ইসলামের সাথে একই বংশের দুঃসম্পর্কের চাচা হারুন অর রশিদ স্থানীয় করিম অাকন খালেক বাজারে ৮ শতাংশ জমি নিয়ে দীর্ঘদিন ধরে চলে অাসছে। ওই জমিতে শহিদুল ইসলাম মুন্সি চারটি অাধাপাকা দোকান ও একটি বসতঘর নির্মান করেন। এ নিয়ে উভয় পক্ষের মধ্যে ইতিপূর্বে কয়েকদফা সালিশ বৈঠক হলেও প্রতিপক্ষ হারুন-অর-রশিদ সালিশদারের রায় উপেক্ষা করে গত মঙ্গলবার রাত সাড়ে ১১ টার দিকে হারুন ও তার ভাই মতি মিয়ার নেতৃত্বে ১০/১২ জনের একটি ভাড়াটে সন্ত্রাসী বাহিনী নিয়ে বেকু দিয়ে গুড়িয়ে দেয়। এ সময় শহিদুল ইসলাম মুন্সী স্থানীয় থানায় বিষয়টি অবহিত করলে থানা পুলিশ পৌঁছার আগেই তার চারটি দোকান ও বসতঘর ভেঙে তছনছ করে দেয়। শহিদুল ইসলাম মুন্সী জানান,প্রতিপক্ষ হারুন অর রশিদ অামার দীর্ঘদিনের ভোগ দখলীয় প্রায় ১০ লক্ষ টাকা মূল্যের চারটি অাধা পাকা দোকান ও বসতঘর ভেঙ্গে গুঁড়িয়ে দিয়েছেন। এ বিষয়ে মামলার প্রস্তুতি চলছে। দোকান ও বসতঘর ভাঙ্গা বিষয়ে প্রতিপক্ষ হারুন অর রশিদে সাথে যোগাযোগ করেও তাকে পাওয়া যায়নি ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *